1. sparkleit.bd@gmail.com : K. A. Rahim Sablu : K. A. Rahim Sablu
  2. diponnews76@gmail.com : Debabrata Dipon : Debabrata Dipon
  3. admin@banglanews24ny.com : Mahmudur : Mahmudur Rahman
  4. mahmudbx@gmail.com : Monwar Chaudhury : Monwar Chaudhury
কবি ‘রুমকি আনোয়ার’ এর একগুচ্ছ কবিতা
সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ০৯:২৮ অপরাহ্ন




কবি ‘রুমকি আনোয়ার’ এর একগুচ্ছ কবিতা

সাহিত্য ডেস্ক::
    আপডেট : ০৪ ফেব্রুয়ারী ২০২২, ১:০০:৩৭ পূর্বাহ্ন

কবি রুমকি আনোয়ার

চন্দ্রাহত রাত

পৃথিবীর সব কোলাহল নিভে গেলে
গুটিসুটি পায়ে আঁধার আসে ,
ভেসে আসে ক্ষুধার্ত শিশুর কান্না
বাঈজীর ঘুঙুরের শব্দে তা মিলিয়ে যায় ।

পুরুষেরা ঢুকে ঘরে , কেওবা অন্য ঘরে
ভালোবাসা বঞ্চিত কিশোরী চোখে শিশির পতন ,
রমনার সেই তিন যুবক আজও পারমাতাল
ঝোপের আড়ালে দেহপসারিনীর হিস হিস শব্দ ।

রাত কি তবে দিনের চেয়ে সরব ?
হয়ত কবিদের রাত হয় দিনে , খুলে বসে অসমাপ্ত পান্ডুলিপি ,
অন্তর্ভেদী রাত আমাকে ক্ষয়িষ্ণু করে ,আমি পারি না সইতে
কারো কারো রক্তস্নাত চুম্বনে রাতের বুকে জোৎস্না নামে ।

নিশি জাগা বৃদ্ধ বেসুরো গলায় গান ধরে
দুপুরের শুভ্র বকের পালক পড়ে থাকে উঠোনে ,
গৃহত্যাগী সন্ন্যাসী হবার সাধ জাগে মনে
খেয়াপারে নৌকো শূন্য শুধু ভেসে যায় ,ভেসে যায় ,ভেসে যায়–

 

তুমি আমি

বিরহ বাতাসে কাঁপে নির্ঘুম চোখের পাতা
তোমার ভালোবাসা আমার কম্পন মিশে আছে কাবেরি নদীর জলে,
লু হাওয়ায় উড়ছে উঠোনে টাঙানো শাদা শাড়ি
তোমার আলাপচারিতা আজও ভাঙ্গা রেকর্ডের মত কানে বাজে ।

” এতো প্রেম দিও না আমায় , শেষে মৃত্যু এসে ফিরে যাবে ,”
তোমার সেই মোটা ফ্রেমের চশমাটা সযত্নে তুলে রেখেছি টেবিলে
আজ শীতের ঝরাপাতা তুমি , নির্বাক চাহনীতে কি যেন বলতে চাও ,
বাগান থেকে ভেসে আসা কামিনী ফুলের গন্ধ নেশা ধরিয়ে দেয় ।

কোন কোন নিশি জাগা রাতে বারান্দায় বসে স্বাতি তারাদের প্রণয় দেখি
হৃদয়ে একে একে ভেসে আসে তোমার চরণ চিহ্নগুলো ,
তোমার অন্তরগত কিছু সংলাপ মাথায় ঘুণে পোকা ঢুকিয়ে দিয়েছে
মানুষের জন্যে মানুষ না প্রয়োজনের জন্যে মানুষ হয়ত দুটো ই ।

মাথা আর তেমন কাজ করে না স্মৃতির অবলোপন ,
রাত হয়ে এলো ঘুমাবার আয়োজন করতে হবে শতাব্দী প্রাচীন শরীরের

জীবনধারা

আমি যেন এক প্রবাহমান নদীর জলধারা
মাঝে শৈবালদাম এসে আষ্ঠে পৃষ্ঠে জরিয়ে ধরে ,
আমার নিঃশ্বাস নিতে কষ্ট হয় ,হাঁপিয়ে উঠি বার বার
ফেরা হয় না পাখীর চোখে ,জলের চোখে ,সাগরসঙ্গমে ।

চোখে আমার অযুত স্বপ্নের আবাস স্মৃতিরাও সেখানে প্রবঞ্চক
কেবল ই পাথর নিঃশ্বাস কালো অক্ষরের শৃঙ্খলে বন্দী হয় না কবিতা ,
ছেঁড়া পালে নোঙ্গর তুলতে বড় কষ্ট ,সরল রৈখিক জীবন বক্রাকারে ঘুরে
নির্বাপিত আঁধার গুলো ঠেলে দেয় দূর অচেনা পথে ।

আদিগন্ত হেঁটে চলি মাঝে নিজের অস্ফুষ্ট গোঙানি শুনতে পাই
প্রায় মুদ্রিত চোখ খুলি বাতাসের কম্পন অভয়বাণী হয়ে আসে ,
আমি লিখতে থাকি পরকালের কবিতা যা , কখনও মুদ্রন হবে না
বারুদ ঘেঁষা জীবন মরণ বুঝে না ,বিধাতার কুটিল হাসি তাও উপহাস করতে জানি ।

অজয় বৈদ্য অন্তর/ ০৪ ফেব্রুয়ারী




খবরটি এখনই ছড়িয়ে দিন

এই বিভাগের আরো সংবাদ







Copyright © Bangla News 24 NY. 2020