1. sparkleit.bd@gmail.com : K. A. Rahim Sablu : K. A. Rahim Sablu
  2. diponnews76@gmail.com : Debabrata Dipon : Debabrata Dipon
  3. admin@banglanews24ny.com : Mahmudur : Mahmudur Rahman
  4. mahmudbx@gmail.com : Monwar Chaudhury : Monwar Chaudhury
কামরান চত্বরের প্রস্তাব অনুমোদন সিসিকের সভায় পিছু হটলেন আরিফুল
মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ০৭:১৬ পূর্বাহ্ন




কামরান চত্বরের প্রস্তাব অনুমোদন সিসিকের সভায় পিছু হটলেন আরিফুল

সিলেট প্রতিনিধি
    আপডেট : ২৮ জুলাই ২০২০, ২:১৮:৪৬ অপরাহ্ন

কামরান চত্বরের প্রস্তাব অনুমোদন সিসিকের সভায় পিছু হটলেন আরিফুল,সোমবার দুপুরে জনতার কামরান চত্বর লেখা বোর্ড সাটিয়ে সমাবেশ করেন আ.লীগের নেতা-কর্মীরা
অবশেষে পিছু হটলেন সিলেট সিটি করপোরেশনের (সিসিক) মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। নগরীর সিটি পয়েন্টকে ‘কামরান চত্বর’ করার প্রস্তাবে সম্মত হয়েছেন তিনি। মঙ্গলবার সিসিকের মাসিক সভায় এই প্রস্তাব নীতিগতভাবে অনুমোদন হয়েছে। সিসিকের প্রধান প্রকৌশলী (ভারপ্রাপ্ত) নূর আজিজুর রহমান সভা শেষে নগর ভবনে উপস্থিত সাংবাদিকদের এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।নগরীর বন্দরবাজারে সিসিক ভবনের সামনের পয়েন্টকে রোববার রাতে হঠাৎ করে মেয়র আরিফুল হক ‘নগর চত্বর’ হিসেবে উদ্বোধন করেন। বেসরকারি একটি ব্যাংকের অর্থায়নে চত্বরে নতুন স্থাপনাও নির্মাণ করা হয়েছিল। মেয়র উদ্বোধন করার পরদিন সোমবার দুপুরে আওয়ামী লীগের অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা ‘নগর চত্বরের’ জায়গায় ‘জনতার কামরান চত্বর’ বোর্ড সাটিয়ে দেন।সিলেটের সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান করোনায় আক্রান্ত হয়ে ১৫ জুন মারা যান।

প্রয়াত কামরান তৎকালীন সিলেট পৌরসভার চেয়ারম্যান, কাউন্সিলর থেকে শুরু করে সিটি করপোরেশনের মেয়র হিসেবে ৩৩ বছর দায়িত্ব পালন করেছিলেন। এ অবস্থায় আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির এই নেতার মৃত্যুর পর সিটি পয়েন্ট কামরানের নামে নামকরণের দাবি ওঠে।এমন দাবির মধ্যে মেয়র আরিফুল হক পয়েন্টের নতুন নামকরণ করায় স্থানীয় আওয়ামী লীগসহ সচেতন মহলে তীব্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়। এ অবস্থায় মেয়র আরিফুল হক দাবি করেছিলেন, সিটি পয়েন্টের তিনি নতুন কোনো নামকরণ করেনি। এছাড়া সাবেক মেয়র কামরান ছাড়াও আওয়ামী লীগ-বিএনপির কয়েকজন নেতার নামে চত্বরের নামকরণের দাবিও কথা উল্লেখ করেন তিনি।গত দুটি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের কামরানকে পরাজিত করেই মেয়র হয়েছেন বিএনপির আরিফুল হক। এই অবস্থায় সিটি পয়েন্টের নাম হঠাৎ বদলে ‘নগর চত্বর’ করার পেছনে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা রাজনীতির গন্ধ পেয়েছেন। তবে মেয়র আরিফুল হক দাবি করেছিলেন,

কোনো চত্বর বা স্থাপনার নামকরণ করতে সিসিকের সভায় সিদ্ধান্তের পর মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন পেতে হয়।মঙ্গলবার নগর ভবনে সিসিকের মাসিক সভার শুরুতেই সিটি পয়েন্টকে কামরান চত্বর করা নিয়ে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। এ সময় আওয়ামী লীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত কাউন্সিলররা সিটি পয়েন্টকে দ্রুত কামরান চত্বর হিসেবে ঘোষণার দাবি জানান। এতে মেয়র আরিফুল হকসহ বিএনপি-জামায়াতের রাজনীতিতে জড়িত কাউন্সিলররাও আর দ্বিমত পোষণ করেননি।সিসিকের প্রধান প্রকৌশলী (ভারপ্রাপ্ত) নূর আজিজুর রহমান জানিয়েছেন, সবার সম্মতিক্রমে নীতিগতভাবে সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়েছে। নগর ভবনের সামনের চত্বরকেই কামরান চত্বর করা হবে। এই বিষয়ে দ্রুত ফাইল প্রস্তুত করে মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হবে। অনুমোদন পেলে আনুষ্ঠানিকভাবে কামরান চত্বর হিসেবে ঘোষণা করা হবে।




খবরটি এখনই ছড়িয়ে দিন

এই বিভাগের আরো সংবাদ







Copyright © Bangla News 24 NY. 2020